নারায়ণগঞ্জ জেলা মৎস্যজীবী দলের উদ্যোগে বৃক্ষরোপণ কর্মসূচি পালন

সান নারায়ণগঞ্জ টুয়েন্টিফোর ডটকম:

বিএনপির প্রতিষ্ঠাতা শহীদ রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমানের ৪০তম শাহাদাত বার্ষিকী উপলক্ষে নারায়ণগঞ্জ জেলা মৎস্যজীবী দলের উদ্যোগে বৃক্ষরোপণ কর্মসূচি অনুষ্ঠিত হয়েছে। ২৬ জুন শনিবার দুপুরে নারায়ণগঞ্জ আদালতপাড়ায় এ কর্মসূচির আয়োজন করা হয়।

কর্মসূচির উদ্বোধন করে জাতীয়তাবাদী মৎস্যজীবী দল কেন্দ্রীয় সংসদের সদস্য সচিব আব্দুর রহিম বলেন, শহীদ জিয়া শুধু একটি নাম নয়, একটি আদর্শ। এ আদর্শ বুকে লালন করে আগামী দিনে দেশ রক্ষার আন্দোলনে সকলকে ঐক্যবদ্ধভাবে অংশগ্রহণ করতে হবে। সে লড়াইয়ে মৎস্যজীবী দল সামনে থেকে নেতৃত্ব দেবে। সবাইকে সে আন্দোলন সংগ্রামে অংশ নেয়ার আহ্বান জানাচ্ছি।

IMG 20210626 183605

কর্মসূচিতে প্রধান বক্তা হিসেবে উপস্থিত থেকে নারায়ণগঞ্জ মহানগর বিএনপির সিনিয়র সহ-সভাপতি অ্যাডভোকেট সাখাওয়াত হোসেন খান বলেন, মহামারী করোনা ভাইরাসে আজ গোটা বিশ্ব আক্রান্ত। বাংলাদেশেও বিস্তার লাভ করেছে এই প্রাণঘাতি রোগটি। মহামারী করোনাভাইরাস মোকাবেলায় বাংলাদেশের স্বাস্থ্য অধিদপ্তর চরমভাবে ব্যর্থ হয়েছে। সরকারের ব্যর্থতার কারণেই এ ভাইরাস আজ গ্রামে গঞ্জে ছড়িয়ে পড়েছে। দেশের সাধারণ মানুষ এই করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে বিনা চিকিৎসায় মারা যাচ্ছে। তাই সকলকে সচেতন থাকতে হবে। বাইরে বের হলে অবশ্যই মাস্ক পড়তে হবে। বাইরে থেকে ফিরে সাবান দিয়ে হাত ধুতে হবে। নিজে সচেতন থাকতে হবে, অন্যকেও সচেতন করতে হবে।

তিনি বলেন, শহীদ প্রেসিডেন্ট জিয়াউর রহমান বাংলাদেশে বহুদলীয় গণতন্ত্র প্রতিষ্ঠা করেছিলেন। তার দেখানো পথ ধরে বিএনপির চেয়ারপারসন ও তিনবারের প্রধানমন্ত্রী বেগম খালেদা জিয়া ও ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমান বর্তমান স্বৈরাচারী সরকারের দুঃশাসন থেকে দেশবাসীকে মুক্তি দিতে লড়াই সংগ্রাম অব্যাহত রেখেছেন। আমরাও তাদের নেতৃত্বে দেশে গণতন্ত্র ফিরিয়ে আনতে রাজপথে আন্দোলন সংগ্রাম চালিয়ে যাবো। সবাইকে সে আন্দোলনে শরিক হওয়ার জন্য প্রস্তুতি গ্রহণ করতে হবে। সকল ভেদাভেদ ভুলে গিয়ে ঐক্যবদ্ধভাবে গণতন্ত্র পুনঃপ্রতিষ্ঠার লড়াইয়ে অংশ নিতে হবে। আর সেই লড়াইয়ে মৎস্যজীবী দল অগ্রভাগে থাকবে বলে আমি বিশ্বাস করি।

নারায়ণগঞ্জ জেলা মৎস্যজীবী দলের আহ্বায়ক অ্যাডভোকেট এইচএম আনোয়ার প্রধান কর্মসূচিতে উপস্থিত সকলকে ধন্যবাদ জানিয়ে বলেন, বিনা ভোটের সরকার বিএনপির নেতাকর্মীদের উপর যেভাবে নির্যাতন আর হামলা মামলা চালিয়ে যাচ্ছে, ইতিহাসের পাতায় তা কালো অধ্যায় হিসেবে লিপিবদ্ধ থাকবে। সে হামলা-মামলার ভয়কে উপেক্ষা করে নেতাকর্মীরা শহীদ জিয়ার আদর্শকে ভালবেসে বিভিন্ন কর্মসূচিতে অংশগ্রহণ করছে, সেজন্য নারায়ণগঞ্জ জেলা মৎস্যজীবী দলের পক্ষ থেকে তাদের সবাইকে লাল সালাম। ১৫ বছরের হামলা-মামলা নির্যাতনেও যাদের বুক থেকে শহীদ জিয়ার ভালোবাসা হারিয়ে যায়নি, তাদেরকে কেউ হারাতে পারবে না, জয় তাদের সুনিশ্চিত। তাই ধৈর্য ধারণ করে প্রতিটি নেতাকর্মীদের আগামী দিনের সকল কর্মসূচি সফলভাবে বাস্তবায়ন করার জন্য অনুরোধ জানাচ্ছি। সেইসাথে নারায়ণগঞ্জ জেলা মৎস্যজীবী দলের প্রতিটি ইউনিটের নেতাকর্মীকে বিশেষ ভাবে ধন্যবাদ জানাচ্ছি বৃক্ষরোপণ কর্মসূচিতে অংশগ্রহণ করার জন্য।

নারায়ণগঞ্জ জেলা মৎস্যজীবী দলের আহ্বায়ক অ্যাডভোকেট এইচএম আনোয়ার প্রধানের সভাপতিত্বে এবং সদস্য সচিব আমিনুল ইসলামের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত কর্মসূচিতে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন জাতীয়তাবাদী মৎস্যজীবী দল কেন্দ্রীয় সংসদের সদস্য সচিব আব্দুর রহিম।

প্রধান বক্তা হিসেবে উপস্থিত ছিলেন মহানগর বিএনপির সিনিয়র সহ-সভাপতি অ্যাডভোকেট সাখাওয়াত হোসেন খান। বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন নারায়ণগঞ্জ মহানগর বিএনপির সহ-সভাপতি মনির হোসেন খান, জাতীয়তাবাদী মৎস্যজীবী দল কেন্দ্রীয় সংসদের যুগ্ম আহ্বায়ক জাকির হোসেন খান, ওমর ফারুক পাটোয়ারী, মোঃ শাহ আলম, সাইদুল ইসলাম টুলু, কেন্দ্রীয় সংসদের সদস্য মাহবুব সিকদার, নারায়ণগঞ্জ মহানগর মৎস্যজীবীদলের আহ্বায়ক ও কেন্দ্রীয় সংসদের সদস্য জাহাঙ্গীর আলম রতন, নারায়ণগঞ্জ মহানগর যুবদলের সাবেক সিনিয়র যুগ্ম সম্পাদক সাগর প্রধান, নারায়ণগঞ্জ জেলা যুবদলের সহ-সভাপতি পারভেজ মল্লিক, যুবদল নেতা লিংকন খান।

উপস্থিত ছিলেন নারায়ণগঞ্জ জেলা মৎস্যজীবী দলের যুগ্ম আহ্বায়ক এইচএম হোসেন, মোহাম্মদ হোসেন, ফতুল্লা থানা মৎস্যজীবী দলের সভাপতি রাসেল প্রধান, সাধারণ সম্পাদক ওমর ফারুক নাইম খান, সহ-সভাপতি সলিমুল্লাহ হৃদয় সহ বিভিন্ন ইউনিটের নেতৃবৃন্দ।